ডায়াবেটিস ঠেকাতে কীভাবে রান্না করবেন ভাত !


ডায়াবেটিসের রোগীদের ডাক্তার এমনিতেই ভাত খেতে বারণ করে দেন। আবার অনেক ক্ষেত্রে মেপে ভাত খেতে বলেন। সেটা এতটাই অল্প পরিমান যে না খাওয়ারই সমান। কিন্তু যদি ভাতে ক্যালরির পরিমান কমিয়ে আনা যায়, তাহলে ডায়াবেটিস রোগি অনায়াসেই ভাত খেতে পারেন। সেক্ষেত্রে কোনো ঝুঁকি থাকে না। ঠিক এই ফর্মুলাকেই কাজে লাগালেন শ্রীলংকার বিজ্ঞানীরা। তারা ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য আবিষ্কার করলেন ভাত রান্নার এক নয়া কৌশল।

Follow Us on facebook :


আসুন জেনে নেওয়া যাক কী সেই পদ্ধতি
প্রথমে পাত্রে জল গরম করুন। তারপর যে পরিমান চাল আপনি ওই জলে রেখে ফোটাতে চান, ঠিক তার তিন শতাংশ নারিকেল তেল দিয়ে ওই জল ফোটান। এবং জলটি ৬ মিনিট ফোটার পর ওই জলে চাল ঢেলে দিন। ভাত হয়ে যাওয়ার পর তা ফ্রিজে রেখে প্রায় ১২ ঘন্টা ঠান্ডা করুন। এরফলে ভাতের ভিতর যে স্টার্চ বা শ্বেতসার থাকে তার রাসায়নিক পরিবর্তন ঘটে গিয়ে ক্যালরি বিনিষ্ট হয়ে যায়। এক্ষেত্রে প্রায় ৭০ শতাংশ অবধি স্টার্চের ক্যালরি নষ্ট হয়ে আসে। ফলে ডায়াবেটিস রোগীরা ওই ভাত নির্দ্বিধায় খেতে পারেন। এতে কোনো ক্ষতির সম্ভাবনা থাকে না।

Facebook Comments