এই কারণগুলোর জন্য ডায়েট করার পরও আপনার ওজন কমছে না

বর্তমানে ওবেসিটি বা স্থুলকায়ত্ব একটা বড় সমস্যা। অনেকেই ভাবেন আমি এত ডায়েট করছি, সকালে-রাতে খুবই কম পরিমানে খাচ্ছি, তা সত্বেও ওজন কেন কমছে না! শরীরের মেদ কমাতে সকালটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কিন্তু সকাল সকাল কিছু ভুলের কারণে ওজন নিয়ন্ত্রণে আনা মুশকিল হয়। আসুন জেনে নেওয়া যাক কী সেই ভুলগুলো।

১) সকালে উঠেই জল পান করা

সারা বিশ্বের ডায়েটিশিয়ান, নিউট্রিশনিস্ট এবং ফিটনেস এক্সপার্টরা এ বিষয়ে একমত যে পর্যাপ্ত পরিমাণে জল পান করাটা সুস্থতার জন্য যেমন জরুরী, তেমনিই জরুরী ওজন কমাতেও। জল শরীর থেকে বিষাক্ত পদার্থ দূর এবং মেটাবলিজম বাড়াতে কাজে আসে। তাই সকালে উঠে পর্যাপ্ত পরিমান জল পান করা দরকার খালি পেটে।

২) সকালে ব্যায়াম

সকালে ব্যায়াম করলে বেশি ক্যালোরি খরচ হয়। ফলে ওজন বাড়া কমে। খালি পেটে ব্যায়াম করলে শরীর থেকে চর্বিও দূর হয়। তার মানে এই নয় যে সকাল সকাল জিমে ছুটতে হবে। আপনি বাড়িতে ও বাড়ির আশেপাশেই কিছু ব্যায়াম করতে পারেন। যেমন হাঁটা, জগিং, দৌড়ানো, সাইকেল চালানো বা স্কিপিং।

৩) ব্রেকফাস্টে টাটকা খাবার

সকালবেলায় সকলেই কমবেশি তাড়াহুড়োয় থাকেন। আর তাড়াহুড়োয় প্যাকেট করা খাবারের ওপরই ভরসা করতে হয়। কিন্তু এসব খাবারে থাকা কৃত্রিম ফ্লেভার এবং প্রিজার্ভেটিভস শরীরের জন্য ক্ষতিকর। এছাড়া এসব খাবার খেলে অতিরিক্ত খাওয়ার প্রবণতা বাড়ে। ওজন কমাতে সকালবেলা ঘরে তৈরি খাবার বা সাধারণ টাটকা খাবার খেতে হবে।



৪) ব্রেকফাস্ট না করা

অনেকেই ভাবেন, একবেলা খাবার না খেলে ওজন কমবে। এই ধারণাটি খুবই ভুল! সকালের খাবার বা ব্রেকফাস্ট দিনের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ খাবার। সকালে খাওয়ার সাথে সাথে মেটাবলিজম দ্রুত হয়। এছাড়া কিছু না খেলে সারাদিনই আপনার ক্লান্তি লাগবে এবং এটা সেটা খেতে ইচ্ছে হবে। ফলে ওজন কমার বদলে বেড়ে যাবে। তাই ব্রেকফাস্ট মিস করবেন না যদি ওজন কমাতে চান।

Facebook Comments